পদ্মায় নৌকাডুবি: ৮ দিন পর সূচনা ও রিপনের মরদেহ উদ্ধার

রাজশাহীতে পদ্মার নবগঙ্গা এলাকায় নৌকা ডুবে নিখোঁজের ৮দিন পর সূচনা ও রিপন নামে দুইজনের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে।
শনিবার ভোরে মরদেহ দুটি ভেসে উঠলে উদ্ধার করে এলাকাবাসী। রাজশাহী মহানগর নৌ-পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মেহেদি মাসুদ এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানান, মরদেহ দুটি সকালে স্থানীয়রা ভেসে উঠতে দেখেন। মরদেহ দুটি নদীর তীরে থাকার কারণে স্থানীয়রা উদ্ধার করতে সক্ষম হন। পরে ফায়ার সার্ভিস অ্যান্ড সিভিল ডিফেন্স এবং পুলিশ সদস্যরা ঘটনাস্থলে উপস্থিত হন।

গত ২৫শে সেপ্টেম্বর নদীতে নৌকা ভ্রমণের সময় ১৩ জন যাত্রী নিয়ে নৌকাটি ডুবে যায়। এরমধ্যে ১১ জন সাঁতরে তীরে উঠলেও বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থী সাদিয়া ইসলাম সূচনা ও তার ফুফাতো ভাই রিমন নিখোঁজ হয়। দুইদিনের চেষ্টায় তাদের উদ্ধার করতে না পেরে অভিযান বন্ধ করে ফায়ার সার্ভিস।

নিখোঁজ সাদিয়া আমেরিকান ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি অব বাংলাদেশের (এআইইউবি) বিবিএ তৃতীয় সেমিস্টারের ছাত্রী ছিলেন। তিনি ঢাকার ধানমন্ডি এলাকায় বসবাস করতেন।রাজশাহীর পবা উপজেলার খোলাবোনা এলাকায় চাচা জালাল উদ্দিনের বাড়িতে বেড়াতে এসে পদ্মায় নৌ-ভ্রমণে গিয়েছিলেন তিনি। নিখোঁজ রিমনের বাড়ি নওগাঁয়। সম্পর্কে তারা মামাতো-ফুপাতো ভাই-বোন।

এদিকে এ ঘটনায় দায়ের করা মামলায় এখনও কাউকে গ্রেপ্তার করতে পারেনি পুলিশ। গত ২৬ সেপ্টেম্বর দুপুরে দামকুড়া থানায় রাজশাহী নৌ-পুলিশের কনস্টেবল শরিফুল ইসলাম বাদী হয়ে নৌকার দুই মালিকসহ তিনজনের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *