আবারো পর্দা কাঁপাতে সিনেমায় ফিরছেন মুনমুন

নব্বই দশকের আলোচিত চিত্রনায়িকা মুনমুন। বিশেষ করে সাহসী খোলামেলা দৃশ্যে অভিনয় করে তার নামের সঙ্গে জুড়ে গেছে অশ্লীল নায়িকার খেতাবও। যদিও নিজের রূপ ও অভিনয়ের মাধ্যমেও অনেক মানষের মন জয় করেছেন তিনি।

ক্যাপ্টেন এহতেশাম পরিচালিত ‘মৌমাছি’ সিনেমার মাধ্যমে চলচ্চিত্রে অভিষেক হয় তার। ১৯৯৭ সালে সিনেমাটি মুক্তি পায়। তারপর টানা অনেক সিনেমায় অভিনয় করে সাড়া ফেলেন তিনি।

সে সময় বিভিন্ন ছবিতে বিরুদ্ধে অশ্লীলতার অভিযোগ উঠেছে। কিন্তু সমালোচকদের কথায় কান না দিয়ে একের পর এক চলচ্চিত্রে কাজ করে গিয়েছেন এই নায়িকা।

সম্প্রতি বরের সঙ্গে বিচ্ছেদ হয় নায়িকা মুনমুনের। এরপর মানসিকভাবে কিছুটা ভেঙে পড়েছিলেন তিনি। সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন মিডিয়া থেকে সরে দাঁড়ানোর। সিনেমা না করারও ঘোষণা দিয়েছিলেন। কিন্তু তিনি সিদ্ধান্ত পরিবর্তন করেছেন। দর্শকদের মানসম্পন্ন কিছু কাজ উপহার দিতেই আবার ফিরেছেন বলে জানান তিনি।

গত ঈদুল আজহার আগে মডেল, অভিনেতা ও প্রযোজক বর মীর মোশাররফ হোসেনকে তালাকের চিঠি পাঠান মুনমুন। এরপর তার মা তাকে মিডিয়া ছেড়ে দেওয়ার সিদ্ধান্ত দেন। মায়ের কথামতো মিডিয়া ছাড়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন তিনি।

মুনমুন বলেন, ‘আম্মু আমাকে বুঝতে পারেন। সে জন্য আম্মুর কথায় আমি সিদ্ধান্ত নিয়েছিলাম। তখন আমি খুব ইমোশনাল হয়ে পড়েছিলাম। যে কারণে সিদ্ধান্ত নিয়েছিলাম মিডিয়ায় আর কাজ করব না।

এরপর আমার মনে হয়েছে, কিছু ভালো কাজ করে যাওয়া উচিত। একটা প্রজন্ম যেন কাজগুলো দেখতে পারে। বললাম আর চলে গেলাম, বললেই তো আর হয় না। ইন্ডাস্ট্রিতে কিছু ভালো কাজ রেখে যাওয়া প্রয়োজন। কেউ যেন পরে বলে, একজন ভালো আর্টিস্ট ছিল।’

২৬ সেপ্টেম্বর থেকে কক্সবাজারে শুরু হয়েছে ‘আগুন আর কতটুকু পোড়ে’ ছবির শুটিং। ১৯৭১ থেকে ১৯৭৫ সালের বিভিন্ন প্রেক্ষাপট নিয়ে ছবির গল্প। এই ছবিতে অভিনয় করছেন মুনমুন।

তিনি জানান, ছবিটি নির্মাণ করছেন রাশেদ মোর্শেদ। কক্সবাজারের পর ছবির বাকি অংশের কাজ হবে বিএফডিসি ও ঢাকার বিভিন্ন জায়গায়। মুনমুন এ ছবির অন্যতম প্রধান চরিত্রে অভিনয় করছেন।

প্রসঙ্গত, মুনমুন এ পর্যন্ত ৯০টি সিনেমায় অভিনয় করেছেন। এর মধ্যে ‘টারজান কন্যা’, ‘মৃত্যুর মুখে’, ‘রাজা’, ‘মরণ কামড়’, ‘রাণী ডাকাত’, ‘আজকের সন্ত্রাসী’সহ অনেক সুপারহিট সিনেমা রয়েছে। ঢাকাই চলচ্চিত্রের বর্তমান সুপারস্টার শাকিব খানের প্রথম ব্যবসাসফল সিনেমার নায়িকাও ছিলেন মুনমুন। এ সিনেমার নাম ‘বিষে ভরা নাগীন’।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *