যে কারনে আবারো আমেরিকায় ফিরে যাচ্ছেন সাকিব

আইসিসি থেকে পাওয়া নি’ষেধাজ্ঞার একদম শেষপ্রান্তে চলে এসেছেন বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান।

চলতি মাসের ২৯ তারিখে সা’জামুক্ত হয়ে যাবেন তিনি। আশা ছিল, শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে টেস্ট সিরিজের দ্বিতীয় ম্যাচ দিয়েই আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে প্রত্যাবর্তন করবেন দেশের ক্রিকেটের এই রাজপুত্র।

এ সিরিজে খেলার জন্য গত মাসের শুরুতে (২ সেপ্টেম্বর) যুক্তরাষ্ট্র থেকে দেশে ফিরে এসেছিলেন সাকিব আল হাসান। সবার মতো তিনি নিজেও আশায় ছিলেন শ্রীলঙ্কা সফর দিয়ে মাঠে ফেরার।

কিন্তু কোয়ারেন্টাইনজনিত ইস্যুতে বাতিল হয়ে গেছে বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের শ্রীলঙ্কা সফর। পরবর্তীতে পরিবেশ-পরিস্থিতির উন্নতি ঘটলে বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের এই তিন ম্যাচের সিরিজ খেলতে বাংলাদেশকে স্বাগত জানাবে লঙ্কান ক্রিকেট বোর্ড।

এখন যেহেতু সিরিজ বাতিল হয়ে গেছে, তাই আর দেশে থাকছেন না সাকিব। আজ বৃহস্পতিবার (১ অক্টোবর) দিবাগত রাত ৩টা ৪৫ মিনিটে কাতার এয়ারওয়েজের ফ্লাইটে সাকিব আল হাসান চলে যাচ্ছেন যুক্তরাষ্ট্রে।

জাতীয় দলের ক্রিকেটারদের বিমানবন্দরের আনুষ্ঠানিকতা সম্পন্ন করেন যিনি, সেই ওয়াসিম খান গণমাধ্যমকে এ তথ্য জানিয়েছেন। যুক্তরাষ্ট্রে দুই কন্যাকে নিয়ে অবস্থান করছেন তার স্ত্রী উম্মে আহমেদ শিশির।

ম’হামারি করোনাকালের শুরু থেকে সাকিব নিজেও ছিলেন যুক্তরাষ্ট্রেই। গত মার্চে ইংল্যান্ডের ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড সফর শেষ করে অল্প কিছুদিনের জন্য দেশে ফিরেছিলেন সাকিব। এরপর পরিবারের সঙ্গে থাকতে চলে যান যুক্তরাষ্ট্রে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *