অবশেষে মা হচ্ছেন অভিনেত্রী জয়া আহসান!

আনেক আগেই দুই বাংলার সিনেমায় অভিনয় গুনে বিশ্বাস, ভরসা আর আস্থার নামে হয়ে উঠেছেন জনপ্রিয় অভিনেত্রী জয়া আহসান। সম্প্রতি ওপাড় বাংলার ‘ছেলেধরা’ নামের এক সিনেমায় মায়ের চরিত্রে যুক্ত হয়েছেন তিনি। পর্দায় আসবেন মাদকাসক্ত মা হয়ে।

বয়সকে তার কাছে সংখ্যা। তারুণ্য তার অভিনয়ের নিত্যসঙ্গী। তাই তো সবরকমের, সব বয়সের চরিত্রে তিনি পারদর্শী, সাবলীল। পর্দায় আটার বছরের তরুনী কিংবা কণ্ঠ সিনেমার সেই চিকিৎসক তাতে কি সবই তার কাছে তুড়ির ব্যাপার। কারণ তিনি জয়া আহসান।

ব্যাচেলর সিনেমা দিয়ে রুপারী পর্দায় জয়ার পথচলা শুরু হয়েছিল। মাঝে আরো দুটি সিনেমা করলেও জয়ার সিনেমা ভুবণে বাজিমাত করেন গেরিলা সিনেমার বিলকিস বানু সিনেমা দিয়ে।গেরিলায় বিলকিস বানু চরিত্রে অভিনয় করে জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারসহ অনেক পুরস্কার নিজের করে নিয়েছিলেন।

জয়া আহসান
বাংলাদেশের পাশাপাশি কলকাতার সিনেমায়ে তিনি নিরবিচ্ছিন্ন কাজ করে যাচ্ছেন। এবার যুক্ত হয়েছেন শিলাদিত্য মৌলিক পরিচালিত ‘ছেলেধরা’ সিনেমায় যেখানে তিনি একজন মাদকাসক্ত মায়ের চরিত্রে অভিনয় করবেন। ‘ছেলেধরা’ শিলাদিত্য মৌলিকের তৃতীয় সিনেমা।

সিনেমার গল্পের কেন্দ্র আছেন জয়া। গল্পে দেখা যাবে একজন মাদকাসক্ত মা ও মেয়েকে অপহরণের গল্প। অপহৃত হওয়ার পর থেকেই অপহরণকারীর ছেলেকে নিজেদের নাগালের মধ্যে পেতে চান ওই মাদকাসক্ত নারী। অবশেষে সেটা সম্ভবও হয়। নিজের ছেলেই যখন অপহরণের শিকার, তখন অপহরণকারীর ঠিক কী অনুভূতি হতে পারে? এই পটভূমির ওপরই নিয়ে তৈরি হচ্ছে ‘ছেলেধরা’।

উল্লেখ্য গতমাসেই করোনাকালীন সমস্যায় নিয়ে ‘অসতো মা সদগময়’ নামের ওপাড় বাংলার এক সিনেমায় অভিনয়ে পাক্কাপোক্ত হয়েছেন জয়া আহসান। যেই সিনেমায় রবিবারের পরে দ্বিতীয় বারের মতো জুটি গড়েছেন প্রসেজিৎ-এর সাথে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *