জ্ঞান ফিরে প্রথমেই যা বললেন ইউএনও ওয়াহিদা!

দু’র্বৃত্তের হা’ম’লার শি’কার ঘোড়াঘাটের উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) ওয়াহিদা খানম নিজের নাম বলতে পারছেন। তিনি ডাকলে সাড়া দিচ্ছেন। তবে হা’ম’লার ঘ’টনা মনে করতে পারছেন না। ইউএনও ওয়াহিদার স্বাস্থ্য পরিস্থিতির সর্বশেষ তথ্য শুক্রবার (৪ সেপ্টেম্বর) সন্ধ্যায় জানান ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট অব নিউরোসায়েন্সেস অ্যান্ড হসপিটালের যুগ্ম পরিচালক অধ্যাপক বদরুল আলম।

ঢাকার আগারগাঁওয়ের এই হাসপাতালেই চিকিৎসাধীন ওয়াহিদা খানম। অধ্যাপক বদরুল আলম বলেন, ‘এখন কোথায় আছেন-এমন প্রশ্নের জবাবে ওয়াহিদা খানম বলছেন, ‘বাসায় আছি।’ হা’ম’লার ঘট’না সম্পর্কে জিজ্ঞাসা করলে তিনি কিছু মনে করতে পারছেন না।’এর আগে হাসপাতালের নিউরোসার্জারি বিভাগের অধ্যাপক জাহেদ হোসেন বলেন, অ’স্ত্রোপ’চারের সময় ওয়াহিদা খানমের মাথায় কমপক্ষে ৯টি আ’ঘা’তের ক্ষ’ত দেখা গেছে। মাথার খু’লির যে হা’ড়টি ভে’ঙে ভেতরে ঢুকে গিয়েছিল, সেটি অ’স্ত্রোপ’চারের সময় বের করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার রাত দেড়টার দিকে তাঁর জ্ঞান ফেরে। তিনি কথাও বলেন। তাঁর শরীরের ডান পাশ এখনো অ’বশ। এটি ঠিক হতে সময় লাগতে পারে। এই হাসপাতালে ওয়াহিদা খানমের আড়াই ঘণ্টার জটিল অ’স্ত্রোপ’চার হয় গতকাল বৃহস্পতিবার রাতে। এই অ’স্ত্রোপ’চারে অংশ নেন ছয়জন চিকিৎসক।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *