অঙ্কিতা পাটনায় প্রায়শই যেতেন,তবে রিয়ার কথা কখনও শোনেননি, বললেন সুশান্তের বাবা!

সুশান্তের বিশেষ বান্ধবী রিয়া চক্রবর্তীর কথা নাকি জানতেই না সুশান্ত সিং রাজপুতের বাবা। সম্প্রতি ছেলের সঙ্গে হওয়া শেষ কথোপকথন প্রসঙ্গে বলতে গিয়ে একথা জানিয়েছেন কে কে সিং রাজপুত। ছেলের সঙ্গে শেষবার তাঁর কী কী বিষয়ে কথা হয়েছিল, সেসব নিয়ে মুখ খুলেছেন সুশান্তের বাবা।’পিঙ্কভিলা’য় প্রকাশিত প্রতিবেদন অনুসারে, সুশান্ত সিং রাজপুতের বাবা জানিয়েছেন, তাঁর ছেলে ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রিতে স্ট্রাগলের কথা তাঁকে বলতেন। তবে সম্প্রতিককালে তাঁর সঙ্গে কী কী ঘটেছিল সুশান্ত তাঁকে কিছুই বলেননি। আর প্রথমবার এমনটা ঘটেছিল। শেষবার ছেলে সুশান্তের বিয়ে নিয়েও তাঁর সঙ্গে কথা বলেছিলেন বলে জানান কে কে সিং রাজপুত। তাঁর কথায়, ২০২১-এর প্রথম দিকেই ও বিয়ে করে নিতে চাইছিল, তবে অবশ্যই করোনার প্রকোপের মধ্যে কখনওই বিয়ে করতে চায় নি। আর ‘দিল বেচারা’-র মুক্তির জন্য অপেক্ষা করছিল।

সুশান্ত সিং রাজপুতের বাবা আরও জানান, রিয়া চক্রবর্তীর বিষয়ে তিনি কিছুই জানতেন না। তাঁর কথায়, অঙ্কিতার বিষয়ে তিনি বেশ ভালো করেই জানতেন এবং অঙ্কিতা প্রায়শই পাটনায় যেতেন তাঁদের সঙ্গে দেখা করতে। এমনকি কৃতি শ্যানন সহ অন্যান্য সহ অভিনেত্রীদের কথাও তাঁকে জানিয়েছিলেন সুশান্ত। তবে রিয়ার কথা শোনেননি বলেই দাবি করেন সুশান্তের বাবা। কে কে সিং জাানন, সুশান্তের মৃত্যুর পর মুম্বইতে তাঁর সঙ্গে এসে কৃতি কথা বলেছিলেন, আরও অনেকেই ছিলেন, তবে মাস্ক পরে থাকায়, সকলকে ঠিক বুঝতে পারেননি তিনি। এমনকি মৃত্যুর পর তাঁর সঙ্গে এবং সুশান্তের দিদিদের সঙ্গে কথা বলেন অঙ্কিতাও। তবে রিয়ার বিষয়ে তিনি বিশেষ কিছুই জানেন না।

সুশান্তের বাবার কথায়, তিনি তাঁর ছেলের বিষয়ে কখনও বেশি মাথা ঘামাতেন না। ওকে ওর মতোই থাকতে দিতে চেয়েছিলেন। এমনকি সুশান্ত যখন পড়াশোনা ছেড়ে নাচ ও অভিনয় ক্লাসে ভর্তি হন, তখনও সুশান্ত তাঁকে ভয়ে বলেননি সেসব কথা। তবে সুশান্ত তাঁর পছন্দের পাত্রীকেই বিয়ে করতে বলেছিলেন বলে জানান কেকে সিং। সুশান্ত তাঁর সমস্ত কথা বড়দিদির সঙ্গেই শেয়ার করতেন বলে জানান কে কে সিং রাজপুত।

সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যুর পর তাঁর সঙ্গে রিয়া চক্রবর্তীর সম্পর্ক বারবার আলোচনায় উঠে আসছে। যদিও সুশান্তের প্রেমের কথা রিয়া অবশ্য প্রথম থেকে অস্বীকার করেই এসেছিলেন। যদিও অভিনেতার মৃত্যুর পর সেই সম্পর্কের কথা রিয়া একপ্রকার স্বীকার করে নিয়েছেন। যদিও তাঁকে সেই সম্পর্ক থেকে মহেশ ভাট তাঁকে বের হয়ে আসার পরামর্শ দিয়েছিলেন বলেও জানিয়েছেন রিয়া।

Author: admin

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *