হঠাৎ দেখা মিলছে রহস্যময় স্তম্ভের, উধাও হচ্ছে ৩ দিনেই (ভিডিও)

মহাজাগতিক বস্তু না এলিয়েনদের পাঠানো বার্তা? নাকি আদিম সভ্যতার কোনো নিদর্শন? বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তে হঠাৎই চোখে পড়ার পর উধাও হয়ে যাওয়া ধাতব স্তম্ভ নিয়ে রহস্য যেন আরও ঘনীভূত হচ্ছে। যুক্তরাষ্ট্রের ইউটাহ অঙ্গরাজ্যের মরু অঞ্চলে খোঁজ মেলার পর একই ধরনের ধাতব স্তম্ভ দেখা গেছে ক্যালিফোর্নিয়ায়। গেল সপ্তাহে রোমানিয়াতেও সেটি দেখা যাওয়ার তিনদিনের মাথায় উধাও হয়ে যায় বলে খবর পাওয়া গেছে।

রুক্ষ মরুর বুকে রূপালী মসৃণ স্তম্ভ। নির্জন প্রান্তরে কে বসালও এ অদ্ভুত স্তম্ভটি? বুঝে ওঠার আগেই গায়েব। কিছুদিন বাদেই পৃথিবীর অপর প্রান্তে আবারও রহস্য ছড়ায় আরেকটি মনোলিথ বা একাকী ধাতব স্তম্ভ।

শুরুটা যুক্তরাষ্ট্রের ইউটাহ রাজ্যে। ১৮ নভেম্বর রেড রক কাউন্টি ডেজার্টে চোখে পড়ে এটি। কদিন না যেতেই একই ধরনের বস্তুর দেখা মেলে ক্যালিফোর্নিয়ার দক্ষিণাঞ্চলে। স্যান ফ্রান্সিসকো এবং লস অ্যাঞ্জেলেসের মধ্যবর্তী দুর্গম পাহাড়ি এলাকায় কে বা কারা এটি রেখে গেছে তার কোনো কূলকিনারা করতে পারেনি স্থানীয় কর্তৃপক্ষ।

গেল সপ্তাহে ইউরোপের দেশ রোমানিয়ার ‘পিয়াত্রা নিমট’ শহরের কাছে ‘নিমট কাউন্টি’ এলাকার পাহাড়ি অঞ্চলেও একই ধাতব স্তম্ভের সন্ধান মেলে। যদিও মাত্র তিনদিনের মাথায় সেটিও উধাও হয়ে যায়। বিষয়টি নিয়ে তদন্ত শুরু হলেও, কোনো সুরাহা করতে পারেনি দেশটির কর্তৃপক্ষ।

কেউ একে বলছে মহাজাগতিক কোনো বস্তু। কেউ বা আবার ভাবছেন ভিনগ্রহবাসীর বার্তা। অনেকেই এটির সঙ্গে ১৯৬৮ সালে মুক্তি পাওয়া সায়েন্স ফিকশন সিনেমা ‘টু থাউজেন্ড অ্যান্ড ওয়ান: এ স্পেস ওডিসি’র যোগসূত্র খুঁজে পেয়েছেন।

Author: Rijvi Ahmed

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *