মিশা-মিতার প্রেমেও ছিল কাঁ’টা, সে যেন সিনেমার গল্পকেও হার মানায়

মিশা সও’দাগর। চল’চ্চিত্রের পর্দায় মন্দ মানু’ষের চ’রি’ত্রে তাকে দেখা যায়। পর্দায় তার স্বভাব-চরি’ত্র দেখলে যে কেউ বল’বে জগ’তের সব’চেয়ে খা’রা’প মানুষ। পর্দা’য় নায়ক-নায়ি’কাদের প্রে’মে সব’সময় বা’গড়া, না’য়িকার দিকে কু-দৃ’ষ্টি কিংবা প্রে’মে পড়ে থা’কেন এবং কখনও স’ফল হতে পারেন না।

কিন্তু বাস্তব জীবনে সর্ম্পূণ উল্টো এই খল অ’ভিনে’তা। বাস্তব জী’বনে মিশা সওদাগর এ’কজন প্রেমি’ক পুরু’ষ ও রোমান্টিক স্বামী। টানা ১০ বছর ‘চু’টিয়ে প্রে’ম করে প্রে’মিকা মিতা’কে বি’য়ে করে’ন। স্ত্রী মি’তার প্রতি মিশার ভা’লো’বাসার দা’রুণ একটি প্র’মাণ মে’লে ‘মিশা’ নামটিতে।

চলচ্চিত্রে অভি’নয়ের সময়ে স্ত্রীর না’মের প্রথম অক্ষর ‘মি’ আর নি’জের শাহিদ নামের ‘শা’ দিয়ে নাম রা’খেন মিশা। সে নামেই তিনি দর্শক মহলে প্রতিষ্ঠিত। এ প্র’সঙ্গে মিশা সওদাগর বলেন, ‘আজ সবাই আমাকে মিশা সও’দাগর নামেই চিনেন।

কিন্তু আমার আসল নাম শাহিদ হাসান।মিশা নামের পেছনে আমার স্ত্রীর সব’চেয়ে বড় ভূমি’কা রয়েছে। কাজের ক্ষে’ত্রে সে সবসময় আমাকে সা’পোর্ট দিয়ে’ছে। তার সাপো’র্ট না পেলে আজ হ’য়তো মিশা হয়ে উঠতে পারতাম না।’ মিশা সওদাগ’র যখন এসএসসি পরী’ক্ষা’র্থী তখন স্ত্রী মিতা নবম শ্রেণীতে পরেন।

ঠিক সে স’ময়ই তাদের প্রেমের শুরু। এ প্রসঙ্গে মিশা সও’দাগর বলেন, ‘মিতা আ’মাদের নিকট আ’ত্নী’য়। যে কারণে আ’মাদে’র বা’সায় তাদের আ’সা যাওয়া ছিল। মিতা অনে’ক মে’ধাবী। এই বি’ষয়টা আ’মাকে খুব আ’কৃষ্ট করে। পর’স্পরে’র প্রতি ভালো’লাগা থেকেই মূলত আমা’দের প্রে’মের শুরু।

মি’তাই প্র’থম প্রেমে’র চিঠি দিয়েছিল। যদিও এটা ছিল শু’ধুই আ’নুষ্ঠা’নি’ত। তার আ’গেই আ’মাদে’র প্রে’ম শুরু হয়ে যায়।’ মিশা-মিতা’র প্রে’ম স’হজ ছিল না। তা’দের প্রেমেও কাঁটা ছিল। এ প্রসঙ্গে মিশা সওদাগর বলেন, ‘প্রেম করতে গিয়ে অনেক ঝা’মে’লায় প’ড়তে হয়েছে। কিন্তু তারপরও দুজ’ন দুজ’নকে ছাড়িনি।

একবার এক ছে’লের স’ঙ্গে বিয়ে ঠিক করে তাকে’ বিদে’শে পা’ঠাতে চেয়ে’ছি’ল, তখন আ’মরা বিয়ে করি।’ আজ মিশা-মিতা দম্পতির ২৭তম বি’বাহবা’র্ষিকী। ১৯৯৩ সালের ৬ ডিসে’ম্বর ভালো’বেসে বি’য়ে করেন তারা। বর্ত’মানে এই দম্প’তির দুই স’ন্তান।

তবে বিবাহ’বার্ষি’কী উ’প’লক্ষে তেমন কোনো আয়ো’জন থাকছে না তা’দের পরি’বারে। তারা এখন আ’মেরি’কায় অব’স্থান ক’রছেন। আট শতা’ধিক সিনে’মার এই অ’ভিনে’তা বাংলা’দেশ চলচ্চিত্র শিল্পী’ সমিতি’র বর্ত’মান সভাপতি।

Author: Rijvi Ahmed

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *