ভয়ে ভয়েই কাটছে অপু বিশ্বাসের দিন-রাত

আবারো পুরোদমে শুরু হয়েছে সিনেমার শুটিং। করোনার প্রভাবে অবসরে থাকা চিত্র তারকারা ব্যস্ত এখন শুটিং নিয়ে। ঢাকায় ও ঢাকার বাইরে চলছে কাজ। এরমধ্যে নতুন সিনেমা শুরু করলেন অভিনেত্রী অপু বিশ্বাস। বর্তমানে সরকারি অনুদানের সিনেমা ‘ছায়াবৃক্ষ’তে কাজ করছেন তিনি। বিপরীতে অভিনয় করছেন অভিনেতা নীরব হোসেন।

একদিকে পাহাড় ঘেরা সবুজের সঙ্গে মেঘের লুকোচুরি, অন্যদিকে চা বাগানের পাশ ঘেঁষে লুসাই কন্যা কর্ণফুলীর মন মাতানো ঢেউ। যা খুব সহজেই মনকে সতেজ করে দেয়। চা বাগানের দৃষ্টিনন্দন ব্রিটিশ বাংলো ও পাখির কিচিরমিচির শব্দ অন্যমাত্রা যোগ করেছে। চট্টগ্রামের রাঙ্গুনিয়ার কোদালা চা বাগানের রূপ এমনই মনোমুগ্ধকর।

চা শ্রমিকদের প্রতিদিনের ক্লান্তিহীন কর্মযজ্ঞ বিকেল গড়াতেই শেষ হয়। অবশ্য এই তড়িগড়ির পেছনে কারণ রয়েছে। স্থানীয়দের ভাষায়, বিকেল ৫টার পর চা বাগানে বন্য হাতি আসে। হাতির আক্রমণে কয়েকজন মানুষ মারা গেছেন। মূলত এই ভয়ে, কাজ শেষ করে ৫টার আগেই সবাই বাড়ি ফিরে যান। কিন্তু বন্য হাতির আতঙ্ক নিয়েই গত ১৫ দিন ধরে সেখানে চলছে ‘ছায়াবৃক্ষ’ সিনেমার শুটিং। ভোরের সূর্যের আলো ছড়ানোর আগেই সবার ঘুম ভাঙে। সূর্য উঠার সঙ্গে সঙ্গে শুটিং শুরু করে শুটিং ইউনিট।

‘ছায়াবৃক্ষ’ সিনেমায় প্রধান চরিত্রে রয়েছেন চিত্রনায়িকা অপু বিশ্বাস। তিনিও তার দিন-রাত কাটাচ্ছেন হাতির ভয়ে ভয়েই। তাকে কেন্দ্র করেই এর গল্প এগিয়েছে। তাই তাকে সেখানে থাকতেই হবে।

তবে বিকেল ৫টা বাজার সঙ্গে সঙ্গে শুটিং বন্ধ করে ঘরে ফিরে আসে শুটিং ইউনিট। কিন্তু ইউনিটের একটি অংশকে রাত কাটাতে হয় চা বাগানেই। তবে সেখানে একটি বাংলোর দরজা বন্ধ করে রাখেন তারা। রাতে বাইরে বের হন না। বলা চলে- হাতির ভয় নিয়েই রাত কাটান তারা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *