ছবি তুলতে যাওয়া ভক্তের ফোন ছুড়ে মারা নিয়ে যা বললো সেই সাকিব ভক্ত!

অনুমতি না নিয়েই বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসানের সঙ্গে সেলফি তুলতে যাওয়ায় ফোন ছুঁড়ে ফেলার ঘটনায় ক্ষোভ জানিয়েছেন এক ভক্ত।
ক্রিকেট ইতিহাসে এখন পর্যন্ত সবচেয়ে মূল্যবান ক্রিকেট রত্ন মানতে হবে সাকিব আল হাসানকে। শুধু দেশসেরা অলরাউন্ডার হিসেবে নয়, অর্জনে দেশের ইতিহাসে এখনো সেরা তিনি। মাঠের ক্যারিশমা যা রেখে গেছেন তাতেই অমরত্ব কেনা হয়ে গেছে। তিনি আজ বৃহস্পতিবার (১২ নভেম্বর) দুপুর ১টার দিকে হঠাৎ করে বেনাপোল স্থলবন্দর দিয়ে ভারতে গেলেন।

ভারতে যাওয়ার পূর্বে বেনাপোল কাস্টমস কমিশনার আজিজুর রহমানের সঙ্গে সৌজন্যমূলক সাক্ষাৎ করেন এই বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার। কিছুক্ষণ সেখানে অবস্থান করার পর সরাসরি বেনাপোল ইমিগ্রেশন হয়ে ভারতে রওনা দেন সাকিব। এসময় স্থানীয় গণমাধ্যমকর্মী ও ক্রিকেট ভক্তরা উপস্থিত থাকলেও তিনি তাদের সঙ্গে কোন প্রকার কথা বলেননি।

কিন্ত তিনি ভারতে যাবার সময় এমন এক আচরণ করে গেলেন তারই এক ভক্তের সঙ্গে। বেনাপোল বন্দরে প্রিয় খেলোয়াড় সাকিবকে দেখতে পেয়ে দৌড়ে তার পাশে যান ভক্ত মোহাম্মদ সেক্টর। তিনি সাকিবের সঙ্গে কয়েকটি সেলফি তোলেন। আর এতেই চটে যান সাকিব। ভক্তের হাত থেকে মোবাইল ফোনটি কেড়ে নিয়ে ছুঁড়ে ফেলেন। এসময় বেনাপোল ইমিগ্রেশনে উপস্থিত সবাই হতবাক হয়ে যান সাকিবের এই আচরণে।

এরপর ক্ষোভ প্রকাশ করেন মোহাম্মদ সেক্টর। তিনি বলেন, আমি সাকিব আল হাসানের একজন ভক্ত। তাকে সামনাসামনি দেখে নিজেকে আর সামাল দিতে পারিনি। এজন্য তার সঙ্গে একটা ছবি তুলতে গিয়েছিলাম। কিন্তু তিনি আমাকে ছবি তুলতে না দিয়ে আমার হাত থেকে ফোন কেড়ে নিয়ে ফেলে দিয়েছেন।

শৃঙ্খলাভঙ্গের দায়ে আগেও বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি) তাকে নিষিদ্ধ করেছিল। গত বছর জুয়াড়িদের সঙ্গে সম্পর্ক রাখায় দুই বছরের জন্য আইসিসির কাছ থেকে নিষেধাজ্ঞা পান। পরে তা এক বছরে কমিয়ে আনা হয়। গত ২৯ অক্টোবর শেষ হয় সাকিবের এক বছরের নিষেধাজ্ঞা। আগামী ২০ তারিখের পর বঙ্গবন্ধু টি-টোয়েন্টি কাপ টুর্নামেন্ট দিয়ে মাঠে দেখা যাবে সাকিবকে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *