বউ পা,গল! মিথ্যে বলে স্ত্রীকে দে,ড় বছর বাথরুমে আ,টকে রেখেছিলেন স্বা,মী

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : টানা ১৮ মাস পর বাথরুম থেকে উদ্ধার হয়েছেন ভারতের হরিয়ানা প্রদেশের ঋষপুর গ্রামের এক নারী। পুলিশ জানিয়েছে, তার স্বামী নরেশ কুমার তাকে বাথরুমে আটকে রাখে।

৩৫ বছর বয়সী ওই নারী ৩ সন্তানের মা। তাকে উদ্ধার করার সময় পুলিশের পাশাপাশি স্থানীয় কল্যাণ সমিতির কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

তারা জানিয়েছেন, চরম অমানবিকতার শিকার হওয়া ওই নারী এতটাই ক্ষুধার্ত ছিলেন যে খাবার দেয়ার পর আটটি রুটি খেয়ে ফেলেন।

জেলার নারী সুরক্ষা কর্মকর্তা রজনি গুপ্তা স্থানীয় গণমাধ্যমকে বলেছেন, ‘তিনি হাঁটতেই পারছিলেন না। আমরা কোনোমতে তাকে বের করেছি।’

স্বামী নরেশ নিজেকে নির্দোষ দাবি করে বলেছেন, তার স্ত্রী মানসিক ভারসাম্যহীন।

কিন্তু পুলিশের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, এই দাবির পক্ষে কোনো প্রমাণ পাওয়া যায়নি। তাই তাকে গ্রেপ্তার দেখানো হয়েছে।

‘বলা হচ্ছে তিনি মানসিক ভারসাম্যহীন। কিন্তু আমরা কথা বলে বুঝেছি কোনো সমস্যা নেই,’ জানিয়ে পুলিশের মুখপাত্র বলেন, ‘এই দম্পতি ১৭ বছর আগে বিয়ে করেছেন। তাদের সংসারে ১১ এবং ১৫ বছরের মধ্যে তিন সন্তান আছে।’

ঠিক কীভাবে পুলিশ ওই নারীর খোঁজ পেল তা জানা যায়নি। ভারতীয় গণমাধ্যম হিন্দুস্তান টাইমস জানিয়েছে, তিনি এখন হাসপাতালে আছেন।

Author: Rijvi Ahmed

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *