ইসলামের টানে সিনেমাকে বিদায় বলেছেন যেসব জনপ্রিয় অভিনেত্রী

জনপ্রিয় অভিনেত্রী তথা ‘বিগ বস ৬’-এর প্রতিযোগী সানা খান, শুক্রবারই সোশ্যাল মিডিয়া পোস্টে জানান, তিনি বিনোদন দুনিয়া ছেড়ে ধর্মের পথে ব্রতী হচ্ছেন। এখন থেকে সৃষ্টিকর্তার নির্দেশে তিনি মানুষের সেবায় নিয়োজিত হবেন।

তবে শুধু সানা খানই নন, গত বছর (২০১৯) ধর্মের জন্য বিনোদন দুনিয়া ছাড়ার কথা সোশ্যাল মিডিয়া পোস্টে ঘোষণা করেন ‘দঙ্গল’ অভিনেত্রী জায়রা ওয়াসিম। ‘দ্য স্কাই ইজ পিঙ্ক’ ছবিতে শেষবার দেখা গিয়েছিল জায়রাকে। তাঁর বিনোদন দুনিয়া ছাড়া নিয়ে সেসময় কিছু কম চর্চা হয়নি।

তবে ধর্মের জন্য তারকা জীবন ছেড়েছেন বলিউডে এমন অনেক তারকাই রয়েছেন। কেরিয়ার যখন মধ্যগগনে, ঠিক তখনই ওশো রজনীশের জন্য ‘সন্ন্যাস’ গ্রহণ করে মার্কিন মুলুকে পারি দেন বিনোদ খান্না।

একসময় ‘বিগ বস’ খ্যাত সোফিয়া হায়াতও গ্ল্যামারাস জগত থেকে দূরে সরে যাওয়ার শপথ করেছিলেন। সেসময় তিনি নিজের নাম রেখেছিলেন গিয়া মাদার সোফিয়া।

বরখা মদন, একসময় তিনি হিন্দি ও পাঞ্জাবি ভাষার ছবিতে অভিনয় করেছেন। মডেলিংও করেছেন।বৌদ্ধ মতাদর্শ দ্বারা প্রভাবিত হয়ে, ২০১২-সালে নভেম্বরে তিনি বৌদ্ধ নান হয়ে কর্মজীবন শুরু করেন। নিজের নাম বদলে রাখেন ওয়েন।

‘আশিকী’ খ্যাত অভিনেত্রী অনু আগরওয়ালের বহু বছর আগে মারাত্মক দুর্ঘটনায় গুরুতর জখম হন। প্রাণে বেঁচে ফেরার পর তিনি যোগব্যায়াম শুরু করেন। তিনি নিজেকে আধ্যাত্মিকতা এবং যোগে উৎসর্গ করেছেন বলে জানান।

একসময়ের গ্ল্যামারাস ও সাহসী অভিনেত্রী মমতা কুলকার্নি পাঁচ বছর আগে সাধ্বী হয়ে সবাইকে অবাক করে দিয়েছিলেন। বলিউডের রাস্তা ছেড়ে তিনি এখন আধ্যাত্মিকতার পথে হাঁটতে শুরু করেন। ২০১৩ সালে, তিনি তাঁর বই ‘আত্মজীবনী একটি যোগিনী’ প্রকাশ করেছিলেন।

মমতা কুলকার্নি চলচ্চিত্র জগতকে বিদায় জানানোর কারণ উল্লেখ করতে গিয়ে বলেছিলেন, ‘কিছু লোক পৃথিবীর কাজের জন্যই জন্মগ্রহণ করে, আবার কিছু মানুষ ঈশ্বরের জন্য জন্মগ্রহণ করেন। আমি ঈশ্বরের জন্য জন্মেছি।’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *