অবশেষে অপুর সাথে এক বাসায় না থাকার কারন জানালেন শাকিব খান

অপুর সঙ্গে কেন এক বাসায় থাকেন না, শাকিব জানালেন সেই কারণঢা’লিউ’ডের ‘স্টার কিড’ হিসেবে প’রিচিত শা’কিব খান ও অপু বিশ্বাসে’র একমা’ত্র পুত্র আব্রাম খান জয়। গত ২৭ সেপ্টেম্বর ছিলো তার চতুর্থ জ’ন্মদিন। তবে কিছু’দিন আগেই অপু বি’শ্বাস মা’কে হা’রান। তাই ছে’লের জ’ন্ম’দিনে এবার কোনো আয়ো’জনই ক’রেননি তিনি। দি’ন’টিতে ছে’লেকে নিয়ে ব’গু’ড়ায় অব’স্থান কর’ছেন অপু।

না’নি’র মৃ’ত্যু’তে জ’য়ের জ’ন্মদি’নও এবার ছি’লো সা’দামা’টা। এমন’কি বাবা শা’কিব খানও এবার জন্ম’দিনে ছেলে’কে কাছে পাননি। ১০ বছর গো’পনে’ সংসা’র করার পর ২০১৮ সালে ছেলে’কে কোলে নিয়ে গণ’মা’ধ্যমের সা’মনে আ’সেন অপু। ২০১৮ সা’লের ২২ ফে’ব্রু’য়ারি ঢাকাই ছবির এ তা’রকা দ’ম্পতির বাস্তব’জী’বনেও বি’চ্ছেদ হয়।

অপুর সঙ্গে শা’কি’বের ছাড়া’ছা’ড়ি হলেও বা’বার দা’য়িত্ব ঠি’কই পালন করেন শাকিব। মাঝে’মধ্যে’ই সুযো’গ পে’লে ছেলেকে দেখতে যান। কো’লে নিয়ে আদর-সো’হাগ করেন আদরে’র পুত্রকে। কিন্তু অপুর স’ঙ্গে ডি’ভো’র্সের কারণে বাপ-ছে’লের এক ছা’দের নিচে থাকা হয় না। ছেলের জ’ন্মদিনে সে কথা লিখে’ই সা’মাজি’ক মাধ্য’মে আ’বেগ’ঘন স্ট্যা’টাস দিয়েছিলেন শাকিব।

সেখানে শাকিব লিখে’ছি’লেন- ‘আমার এই ছোট্ট জীবনে ভালোবাসা, সম্মান, সম্মাননা সব’কিছু পেয়েছি। আল’হামদুলি’ল্লাহ এখন পর্যন্ত আ’মার জীবনের সবচেয়ে বড় অর্জন তুমি। আমা’র ‘জয়’ বাবা। ইনশাআল্লাহ একদিন তুমি ‘আমা’র চেয়েও সফল এবং অনেক ভালো একজন ‘হবে। ছাড়িয়ে যাবে বাবার স্বপ্নে’র সক’ল সী’মানা’কেও। তোমার চলার পথে বাবা আ’মৃ’ত্যু ছায়া হ’য়ে পাশে থাকবে, যেমনটা এখ’নো আ’ছে। এক চরম বাস্তবতার কারণে হয়তো তুমি আমি সবসময় এক ছাদের নিচে থাকতে পার’ছি না, কিন্তু আ”মরা ঠিকই আছি ভালোবাসা আর সুরক্ষার ছা’য়ায় ও মা’য়ায়। তো’মাকে আমি সব’স’ময় এবং আ’জীব’ন ভা”লোবাসি বাবা।’

এদিকে ছে’লের জন্ম’দিনে কোনো আ’য়োজ’ন করতে না পা’রায় অপু বিশ্বাসও সা’মাজি’ক যো’গাযোগ’মাধ্যম ফেসবুকে স্ট্যাটা’স দিয়ে’ছিলেন।

অপু লিখেছিলেন- “বা’বা এবার তো’মার জ’ন্মদি’নের কোন আয়োজন-ই আমি করতে পার’লাম না, তোমার দিদা তোমা’র পাশে নেই, আমরা আর কখ’নো তো’মার দিদার দেখা পাবো না। আমি তো’মার মা হিসেবে তোমাকে অনেক অনেক আ’শী’র্বাদ করি, তোমার ‘দিদার আশা পূরণ করে যেন আমি তো’মাকে মানু’ষে’র মতো মানু’ষ কর’তে পা’রি।

আপ’নারা যা’রা যারা আমার জ’য়কে ভালো’বা’সেন তারা সবাই জ’য়ের জন্য অনেক অনেক আ’শীর্বা’দ করবেন, জয় যেন মানু’ষের মতো মানুষ হিসেবে নিজে’কে গড়ে তুলতে পারে। এ’টাই হবে জ’য়ের জন্য এ’বারে’র জন্ম’দিনের অমূ’ল্য উপহার। -অপু বিশ্বাস” সূত্র: ডেইলি বাংলাদেশ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *