রেললাইনে বসে গেম খেলায় মনোযোগী থাকায় প্রাণ গেল বিদ্যুতের!

চুয়াডাঙ্গার আলমডাঙ্গায় রেললাইনে বসে মোবাইলফোনে অনলাইন গেম ‘ফ্রি ফায়ার’ খেলার সময় ট্রেনের ধাক্কায় প্রাণ হারিয়েছে ওয়ালিদ হোসেন বিদ্যুৎ নামের এক কিশোর।

মঙ্গলবার (২২ সেপ্টেম্বর) বিকেলে আলমডাঙ্গা রেলস্টেশনের অদূরে রেললাইনের উপর বসে মোবাইলফোনে গেম খেলায় বিভোর ছিল ওই কিশোর। সে সময় খুলনাগামী কপোতাক্ষ এক্সপ্রেসের ধাক্কায় গুরুতর জখম হয় সে। তাকে উদ্ধার করে রাজশাহী মেডিকেল হাসপাতালে ভর্তি করা হলে চিকিৎসাধীন অবস্থায় পরদিন ভোর রাতে তার মৃত্যু হয়।

জানা যায়, আলমডাঙ্গা উপজেলার বাড়াদি গ্রামের আকরাম হোসেনের ছেলে ওয়ালিদ হোসেন বিদ্যুৎ (১৮) চাকুরির সুবাদে বেশ কিছুদিন ধরে আলমডাঙ্গা শহরে অবস্থান করতো। মঙ্গলবার বিকেল সাড়ে ৪ টার দিকে সে আলমডাঙ্গা রেলওয়ে স্টেশনের অদূরে রেললাইনে বসে মোবাইল ফোনে অনলাইন গেম ফ্রি ফায়ার খেলায় বিভোর ছিল। সে সময় রাজশাহী থেকে ছেড়ে আসা খুলনাগামি কপোতক্ষ এক্সপ্রেসের ধাক্কায় সে জখম হয়। তাকে দ্রুত উদ্ধার করে প্রথমে আলমডাঙ্গার পপুলার মেডিকেল সেন্টারে ও পরে চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে অবস্থার অবনতি হলে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার করা হয়। রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় পরদিন ভোর রাতে তার মৃত্যু হয়।

বুধবার বিকালে বিদ্যুতের লাশ নিজ গ্রামে পৌঁছে। বিদ্যুতের মরদেহ গ্রামে পৌঁছলে এলাকার মানুষ ও বন্ধু বান্ধব এক নজর দেখতে ছুটে আসেন। মা-বাবাসহ নিকট স্বজনদের বুকফাঁটা আর্তনাদে বাতাস ভারি হয়ে উঠেছিল। বাদ মাগরিব জানাযা শেষে গ্রামের গোরস্থানে লাশ দাফন করা হয়েছে।

Author: Rijvi Ahmed

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *