সুনির্দিষ্ট নির্দেশনা না পেয়ে ধোঁয়াশায় রেডজোনের জনগণ

মঙ্গলবার রাত ১২টা এক মিনিট থেকে পূর্ব রাজাবাজার এলাকা রেডজোন হিসেবে পরীক্ষামূলকভাবে লকডাউন করা হবে বলে জানিয়েছেন ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের মেয়র আতিকুল ইসলাম। সোমবার (৮ জুন) বিকেলে সময় সংবাদকে তিনি এ কথা জানান। তবে রেডজোন নিয়ে সুনির্দিষ্ট নির্দেশনা না পাওয়ায় এখনও ধোঁয়াশায় এলাকাবাসী।

করোনা সংক্রমণ ঠেকাতে ছোট ছোট ভাগে রেড জোন, ইউলো জোন ও গ্রীন জোন করা নিয়ে গত তিন চারদিন ধরেই ব্যাপক আলোচনা চলছিলো সরকারের উচ্চ পর্যায়ে। জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় ও স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় থেকে বলা হয়েছিলো রোববার থেকেই করোনা শনাক্ত বিবেচনায় জোনভিত্তিক এলাকা ভাগ করা হবে।

যদিও সোমবার পর্যন্ত ঢাকায় তা কার্যকর হতে দেখা যায় নি। তবে অবশেষে রাজধানীর পূর্ব রাজাবাজার এলাকাকে রেডজোন ঘোষণা করে লকডাউনের চুড়ান্ত সিদ্ধান্ত নিয়েছে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন। যা মঙ্গলবার মধ্যরাত থেকে কার্যকর হবে বলে জানিয়েছেন উত্তরের মেয়র আতিকুল ইসলাম। তিনি জানান, লকডাউন সময়ে এসব এলাকার মানুষের ঘরে ঘরে সকল সুবিধা পৌঁছে দেয়া হবে।

তিনি বলেন, ‘পরীক্ষামূলকভাবে আমরা পূর্ববাজারটিকে লকডাউন ঘোষণা করতে যাচ্ছি। রেড জোনের যা যা করতে হবে সেটাই করার জন্য পদক্ষেপ নেওয়া হবে।’

এদিকে রেডজোন ঘোষণার পরই সোমবার বিকেলে ঐ এলাকায় লকউন কালে কি কি বিধি নিষেধ থাকবে তা জানিয়ে মাইকিং করা হয় স্থানীয় কাউন্সিলর অফিসের পক্ষে থেকে। যদিও এলাকাবাসী লকডাউন নিয়ে মিশ্র প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেন।

একজন বলেন, ‘মাইকিং করে লিফলেট দেয়নি কিছু বুঝি নাই। কি খোলা থাকবে কি খোলা থাকবে না। কিভাবে বাজার করবো তার কোনো দিক নির্দেশনা পাইনি।’

আরেকজন বলেন, ‘প্রশাসন মাইকিং করেছে যারা লকডাউনের আইন না মানবে তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’

মঙ্গলবার ভোর থেকে আগামী ১৪ দিনের জন্য রেডজোন হিসেবে লকডাউন করা হচ্ছে নোয়াখালী সদর ও বেগমগঞ্জ উপজেলাও।

Author: Online Editor

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *