রাত পো’হালেই বাংলাদেশের স্বপ্ন পূরণ

সব কিছু ঠি’কঠা’ক থাক’লে আ’গামী’কাল বৃহস্প’তিবার ( ১০ ডিসেম্বর) বস’তে পা’রে স্বপ্নে’র প’দ্মা সেতুর সর্ব’শেষ স্প্যা’নটি। এরফলে ৪১ স্প্যা’নে দৃ’শ্যমা’ন হবে পুরো পদ্মা সেতু। এরই ম’ধ্যে প’দ্মা সেতুর শেষ স্প্যা’ন’টিকে ১২ ও ১৩ নম্বর খুঁ’টির ‘কাছে নিয়ে যা’ওয়া হয়ে’ছে। ৪১তম স্প্যা’নটি পৌঁ’ছা’নোর মধ্য দি’য়ে ইয়া’র্ডে সেতু’র স্প্যা’ন সংশ্লি’ষ্ট কাজ শে’ষ হ’লো।

২০১৭ সা’লের ৩০ সে’প্টে’র জা’জি’রা প্রা’ন্তে’র ৩৭ ও ৩৮ নম্বর খুঁ’টিতে ব’সা’নো হয় সেতুর প্রথম স্প্যান। আর ২০২০ সালের ১০ ডিসে’ম্বর বৃহস্প’তি’বার মাও’য়া প্রা’ন্তের ১২ ও ১৩ নম্বর খুঁ’টির ওপর সেতু’র স’র্ব’শেষ তথা ৪১তম স্প্যান ব’সা’নো হবে বলে জানা’ন প’দ্মা সেতুর প্র’কল্প পরি’চা’লক স’ফি’কুল ইসলাম।

ক’রো’নার কার’ণে আ’নু’ষ্ঠানি’কতা নেই, তবু এর মধ্যে মাও’য়ার কু’মার’ভো’গ ই’য়ার্ডে সা’জি’য়ে তোলা হয়ে’ছে স্বপ্নে’র সে’তুর স’বশে’ষ স্প্যা’নটি। চায়’না মে’জর ব্রিজ কোম্পানি করছে সেতু’র কাজ। স্প্যানে’র দুই পা’শে তাই বাংলা’দেশ ও চী’নের জা’তী’য় পতা’কা সেটে দেওয়া হয়ে’ছে। দুদে’শের সু’স’র্ম্পকের কথা উল্লে’খ করা হ’য়েছে বড় এক’টি অংশ জুড়ে। স্প্যা’নের গা’য়ে লি’খে রাখা হয়েছে, যে শ্রমি’ক’দের শ্রমে-ঘা’মে কাজে’র এত অগ্রগ’তি, তাদের কী’র্তিগা’থা।

স্প্যা’নটির নি’রাপ’ত্তায় সে’নাবা’হিনী ট’হল দিচ্ছে। স্প্যা’নটি স্থাপন পর্য’ন্ত পদ্মা সেতুর ১২ ও ১৩ নম্বর খুঁ’টি ও আশ’পাশ এলা’কায় ফে’রিসহ সব ধর’নের নৌ’যান চলা’চলে নি’ষেধা’জ্ঞা আরো’প করা হ’য়েছে। পুরো এলা’কায় নি’রা’পত্তা জো’রদার ও ন’জর’দারি বা’ড়া’নো হ’য়েছে।

স্প্যা’নটি বাংলাদেশ ও চীনে’র পতা’কার রঙে সাজা’নো ছিল। তবে নি’রাপ’ত্তা’র কারণে কোনো রকম অনু’ষ্ঠান উ’দযা’পন করা হ’য়নি। মাওয়া প্রা’ন্তে এখন ১১টি স্প্যান পাড় ছুঁ’য়ে দৃশ্য’মান, জাজি’রা প্রান্তে ২৯টি। মধ্যখানে এক’টি শূন্য’স্থান। সে’খানে ৪১তম স্প্যান বসে যাও’য়ার পর মা’ওয়া থেকে জাজি’রা একই সূ’য় মি’লিত হবে। সূত্র: ইত্তেফাক

Author: Rijvi Ahmed

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *